সিলেটের প্রথম করোনা আক্রান্ত ডাক্তার মঈন উদ্দিনের ইন্তেকাল।

প্রকাশিত: 2:48 PM, April 15, 2020

20200415_144302অনলাইন ডেস্কঃ সিলেট এম এ জি ওসমানী মেডিকেল কলেজ হাসপাতালের মেডিসিনের সহকারী অধ্যাপক মানবিক ডাক্তার মঈন উদ্দীন করোনায় আক্রান্ত হয়ে চিকিৎসাধীন অবস্থায় মারা গেছেন।
আজ (১৫ এপ্রিল) সকালে রাজধানীর কুর্মিটোলা জেনারেল হাসপাতালে তার মৃত্যু হয় (ইন্নালিল্লাহি ওয়া ইন্না ইলাইহি রাজিউন)।

তার মৃত্যুর খবর নিশ্চিত করেন, বাংলাদেশ মেডিকেল অ্যাসোসিয়েশনের (বিএমএ) মহাসচিব ডা. ইহতেশামুল হক চৌধুরী দুলাল।

কুর্মিটোলা জেনারেল হাসপাতালের পরিচালক ব্রিগেডিয়ার জেনারেল জামিল আহমেদ এ তথ্য নিশ্চিত করে বলেন, আজ সকালে ডা. মঈন উদ্দীন আইসিইউতে চিকিৎসাধীন অবস্থায় মারা যান।

স্বাস্থ্য অধিদপ্তরের সিলেট বিভাগীয় কার্যালয়ের সহকারী পরিচালক ডা আনিসুর রহমান জানান, ডা. মঈন উদ্দীন আগে থেকেই ভেন্টিলেটরে ছিলেন। সংক্রমণ তার হার্টে ছড়িয়ে পড়েছিল। মঙ্গলবার রাত থেকে তার শরীর বেশি খারাপ করে।

তিনি আরও জানান, সংক্রমণ বিধি মেনে ঢাকাতেই তার দাফন হবে।

ড. মঈন সিলেটে করোনা যুদ্ধে প্রথম সারির যোদ্ধা ছিলেন। করনোয় আক্রান্ত হয়ে তিনি ঢাকায় চিকিৎসাধীন ছিলেন। ডা. মঈন উদ্দিনের বাড়ি সুনামগন্জের ছাতক উপজেলার ধারনে।

তিনি ঢাকা মেডিকেলের মেধাবি ছাত্র ছিলেন। তার মৃত্যুতে সর্বত্র শোকের ছায়া নেমে এসেছে। দুই শিশু সন্তান ও স্ত্রীকে রেখে চির বিদায় নিলেন এই করোনা যোদ্ধা। ডা. মঈনের স্ত্রীও একজন চিকিৎসক।

ভদ্র বিনয়ী ডা. মঈন গরীব মানুষের ফি নিতেন না। সিলেটের হাউজিংএস্টেটে তার বাসা।

জানা গেছে, দায়িত্ব পালন করতে গিয়ে করোনায় আক্রান্ত হন ডা. মইন। গত ৫ এপ্রিল তার করোনা পজিটিভ আসে। তখন থেকেই ওই চিকিৎসকের পরিবারসহ নগরীর হাউজিং এস্ট্রেট এলাকা লকডাউন ঘোষণা করা হয়। অবস্থায় অবনতি ঘটলে ৭ এপ্রিল তাকে সিলেট নগরীর শহীদ শামসুদ্দিন হাসপাতালে করোনা ইউনিটে আইসোলেশনে রাখা হয়। সেখান থেকে পরবর্তীতে পরিবারের সিদ্বান্ত অনুযায়ী তাকে এ্যম্বুলেন্সযোগে দ্রুত ঢাকায় স্থানান্তর করা হয়।

সংবাদটি শেয়ার করুন

এই সংবাদটি 46 বার পঠিত হয়েছে

এ সংক্রান্ত আরও সংবাদ