উপজেলা চেয়ারম্যানের বাহিনী কর্তৃক নীরিহ মৎস্যজীবীদের জলমহাল দখলের অভিযোগ।

প্রকাশিত: 9:24 AM, September 4, 2019

20190904_092303আদালত প্রতিবেদক ; ধর্মপাশা উপজেলা চেয়ারম্যান, ইউপি চেয়ারম্যান ও ছাত্রলীগ – যুবলীগ কর্তৃক জলমহাল জবর দখল ও সংখ্যালঘু ঝালো সম্প্রদায়কে এলাকা থেকে উচ্ছেদের হুমকি প্রদানের অভিযোগ পাওয়া গেছে। আজ সকাল ১১টায় নির্যাতিত সুনই মৎস্যজীবী সমবায় সমিতি লি: এর সভাপতি চন্দন বর্মন ও সম্পাদক ঝন্টু বর্মন স্বাক্ষরিত লিখিত অভিযোগ জেলা প্রশাসক ও পুলিশ সুপার বরাবরে দাখিল করা হয়।
সুনামগঞ্জ জেলা প্রশাসকের নিকট দায়েরকৃত লিখিত অভিযোগে জানা যায়, সুনামগঞ্জ জেলার ধর্মপাশা উপজেলার মনাই নদী প্রকাশিত সুনই নদী জলমহালটি ভুমি মন্ত্রণালয় হতে ১৪২২বাংলা হতে ১৪২৭বাংলা সন পর্যন্ত ইজারাপ্রাপ্ত হইয়া ভোগাধিকার করে আসাবস্থায় গতকাল ০২/০৯/২০১৯ ইং বিকাল ৫টার দিকে নুরহোসেন চেয়ারম্যান, ছাত্রলীগ সভাপতি পারবেজের নেতৃত্বে ছাত্রলীগ-যুবলীগ নামধারী কতিপয় সন্ত্রাসী উক্ত জলমহালের ক্যাম্প ঘরে অনধিকার প্রবেশ করে হুমকি ধমকি দিয়ে সবাইকে ক্যাম্প ছেড়ে চলে যেতে বলে, ঐ সময় সমিতির লোকজন জলমহালের ইজারাপ্রাপ্তের রশিদ দেখালে নুর হোসেন চেয়ারম্যান ও পারবেজ উত্তেজিত ভাষায় গালি গালাজের এক পর্যায়ে বলে যে ” দুই টেইক্কা ঝালো খাজনা টাজনা বুঝিনা, কোন আইন টাইন বুঝিনা বাচতে চাইলে ঘরবাড়ী ফালাইয়া ঢাকা নতুবা ইন্ডিয়া যা “। সেসময় তাদের সহযোগী কালা মিয়া, বাতেন মিয়া গংরা ৩টি ইঞ্জিন চালিত নৌকা নিয়া সমিতির ক্যাম্প ঘর জবর দখল করে রেখেছে মর্মে অভিযোগপত্রে উল্লেখ করা হয়। সেই সাথে উপজেলা চেয়ারম্যান মোজাম্মেল হোসেন রুকনের অত্যাচার ও অবিচার জুলুমের হাত থেকে অভিযোগকারী সমিতির লোকজন সহ জলমহালটি রক্ষা করতে আবেদন জানানো হয়েছে।
এ ব্যাপারে উপজেলা চেয়ারম্যানের বক্তব্য জানতে চেয়ে একাধিকবার যোগাযোগ করা হলে ও তাকে পাওয়া যায়নি। বিষয়টি সম্পর্কে তদন্ত করে দ্রুত আইনানুগ ব্যাবস্থা গ্রহনের নির্দেশ দিয়েছেন জেলা প্রশাসক আব্দুল আহাদ।

সংবাদটি শেয়ার করুন

এই সংবাদটি 18 বার পঠিত হয়েছে

এ সংক্রান্ত আরও সংবাদ