ব্যাংক চুরিতে জড়িত থাকার কথা অস্বীকার ফিলিপিনো ব্যবসায়ীর

প্রকাশিত: 2:58 PM, March 11, 2016

ব্যাংক চুরিতে জড়িত থাকার কথা অস্বীকার ফিলিপিনো ব্যবসায়ীর

যুক্তরাষ্ট্রের কেন্দ্রীয় ব্যাংকে অবস্থিত বাংলাদেশ ব্যাংকের অ্যাকাউন্ট থেকে হ্যাকিং-এর মাধ্যমে প্রায় ৮০০ কোটি টাকা হাতিয়ে নেয়ার সঙ্গে জড়িত থাকার অভিযোগ অস্বীকার করেছেন এক ফিলিপিনো ব্যবসায়ী। ফিলিপাইনের অর্থপাচার বিরোধী সংস্থা এ ঘটনায় জড়িত থাকার সন্দেহে মোট ছয়জন ব্যক্তির বিরুদ্ধে তদন্ত করছে। এ ছয়জনের একজন উইলিয়াম এস. গো। তার দাবি, এ চুরির ঘটনায় তিনি জড়িত নন। তাই তার ব্যাংক অ্যাকাউন্ট খুলে দিতেও তিনি কর্তৃপক্ষের কাছে দাবি জানিয়েছেন। এ খবর দিয়েছে বার্তাসংস্থা এপি।
উইলিয়াম এস. গোর আইনজীবী র‌্যামন এসগুয়েরা আজ বলেন, ফিলিপাইনের রিজাল কমার্শিয়াল ব্যাংকিং কর্পোরেশনের (আরসিবিসি) একটি শাখায় এস. গো এবং তার কো¤পানি সেঞ্চুরিটেক্স ট্রেডিং-এর নামে যেসব অ্যাকাউন্ট নিবন্ধিত রয়েছে, সেগুলো ভুয়া! এমনকি এসব অ্যাকাউন্টে উইলিয়াম গোর স্বাক্ষরও জালিয়াতি করা হয়েছে!
উইলিয়াম গোর পক্ষে তার আইনজীবী র‌্যামন অন্য ব্যাংকে তার অ্যাকাউন্টসমূহ খুলে দিতে ফিলিপাইনের আপিল আদালতে আবেদন করেছেন।
প্রসঙ্গত, এ সপ্তাহে বাংলাদেশ ব্যাংক জানায়, গত মাসে নিউ ইয়র্কের ফেডারেল রিজার্ভ ব্যাংকে অবস্থিত তাদের অ্যাকাউন্ট থেকে ১০০ মিলিয়ন ডলার বা প্রায় ৮০০ কোটি টাকা চুরি হয়েছে। পরে জানা যায়, এর মধ্যে ৮১ মিলিয়ন ডলার ফিলিপাইনের আরবিসি ব্যাংকের একটি শাখার ৫টি অ্যাকাউন্টে স্থানান্তরিত হয়েছে। এ অর্থ পরে ফিলিপাইনের তিনটি ক্যাসিনো হয়ে হংকং-এ চলে গেছে।
দুনিয়ার ইতিহাসে অন্যতম বড় এ ব্যাংক চুরির ঘটনা পৃথকভাবে তদন্ত করছে বাংলাদেশ ব্যাংক। তদন্তে সহায়তা করছে সাইবার নিরাপত্তা বিষয়ক প্রতিষ্ঠান ওয়ার্ল্ড ইনফরম্যাটিক্স ও ফায়ারআই। সহায়তার প্রস্তাব দিয়েছে এফবিআই ও মার্কিন বিচার বিভাগ।

সংবাদটি শেয়ার করুন

এই সংবাদটি 20 বার পঠিত হয়েছে

এ সংক্রান্ত আরও সংবাদ