নিখোজ ৪ স্কুল ছাত্রের লাশ উদ্ধার

প্রকাশিত: 8:33 AM, February 17, 2016

নিখোজ ৪ স্কুল ছাত্রের লাশ উদ্ধার

xzপ্রান্তডেস্ক:হবিগঞ্জের বাহুবলে এক গ্রামের ৪ শিশু নিখোঁজ হওয়ার ৫ দিনপর বালুর গর্ত থেকে অর্ধগলিত মৃতদেহ উদ্ধার করা হয়েছে। আজ বুধবার দুপুর সাড়ে ১২টায় লাশগুলো উত্তোলন করা হয়েছে। গত শুক্রবার উপজেলার ভাদেশ্বর ইউনিয়নের সুন্দ্রাটিকি গ্রামের একপরিবারের ৩ জন সহ ৪ শিশু নিখোঁজ হয়। পরদিন শনিবার এ ব্যাপারে বাহুবল মডেল থানায় সাধারণ ডায়েরি এবং মঙ্গলবার অপহরণ মামলা দায়ের করা হয়। গত শুক্রবার উপজেলার সুন্দ্রাটিকি গ্রামের মো. ওয়াহিদ মিয়ার ছেলে জাকারিয়া আহমেদ শুভ (৮), তার চাচাত ভাই আব্দুল আজিজের ছেলে তাজেল মিয়া (১০) ও আবদাল মিয়ার পুত্র মনির মিয়া (৭) এবং তাদের প্রতিবেশী আব্দুল কাদিরের ছেলে ইসমাঈল হোসেন (১০) নিখোঁজ হয়। এ ব্যাপারে পরদিন ওয়াহিদ মিয়া বাদী হয়ে বাহুবল থানায় সাধারণ ডায়েরি করেন। এরপর থেকে পুলিশের একাধিক টিম মাঠে নামে ওই শিশুদের অনুসন্ধানে। সোমবার বিকেলে হবিগঞ্জের পুলিশ সুপার জয়দেব কুমার ভদ্রের পক্ষ থেকে নিখোঁজ শিশুদের সন্ধানদাতাকে ২০ হাজার টাকা পুরষ্কার ঘোষণা করা হয়। এতেও কাজ হয়নি। এ অবস্থায় নিখোঁজ শিশু মনির মিয়ার পিতা আবদাল মিয়া বাদী হয়ে মঙ্গলবার রাতে বাহুবল মডেল থানায় অজ্ঞাত আসামীদের বিরুদ্ধে একটি অপহরণ মামলা দায়ের করেন। সর্বশেষ আজ বুধবার সকাল ১০টার দিকে স্থানীয় সুন্দ্রাটিকি গ্রামের পার্শ্ববর্তী ইচ্ছাবিলের একটি বালুর গর্তে বালুচাপা অবস্থায় শিশুদের হাত, পা ও মাথা দেখতে পেয়ে স্থানীয় লোকজন পুলিশকে খবর দেয়। খবর পেয়ে, বাহুবল উপজেলা চেয়ারম্যান মো. আব্দুল হাই, উপজেলা নির্বাহী অফিসার সাইফুল ইসলাম, সহকারী কমিশনার (ভূমি) সুমনা আল-মজীদ, পুলিশ সুপার জয়দেব কুমার ভদ্র, সহকারী পুলিশ সুপার মাসুদুর রহমান মনির, ডিবি ইন্সপেক্টর মুক্তাদির হোসেন ও র‌্যাব-৯ এর ইন্সপেক্টর তোষার ঘটনাস্থলে গিয়ে দুপুর ১২টায় লাশ উত্তোলন কাজ শুরু করেন। একে একে বের হয়ে আসে ৪ নিখোঁজ শিশুর মরদেহ। এ সময় নিহত শিশুদের পিতা-মাতা, আত্মীয়-স্বজন ও এলাকাবাসী উপস্থিত ছিলেন। এ রিপোর্ট লেখা পর্যন্ত হত্যাকান্ডের ক্লু জানা যায়নি। এমনকি কেউ গ্রেপ্তারও হয়নি।

সংবাদটি শেয়ার করুন

এই সংবাদটি 10 বার পঠিত হয়েছে

এ সংক্রান্ত আরও সংবাদ