পোড়াবস্তিতে যুবকের পায়ে গুলির অভিযোগ পুলিশের বিরুদ্ধে অনলাইন

প্রকাশিত: 8:27 AM, February 8, 2016

পোড়াবস্তিতে যুবকের পায়ে গুলির অভিযোগ পুলিশের বিরুদ্ধে অনলাইন

gপ্রান্তডেস্ক:রাজধানীর মিরপুরের কল্যাণপুরের পোড়াবস্তিতে এক যুবককে ধরে নিয়ে গুলির অভিযোগ উঠেছে পুলিশের বিরুদ্ধে। ওই যুবকের নাম সাজু (৩০)। গুরুতর আহত অবস্থায় পঙ্গু হাসপাতালে ভর্তি করা হয়েছে তাকে। ঘটনার প্রতিবাদে তাৎক্ষণিকভাবে পুলিশ সদস্যদের অবরুদ্ধ করে বস্তির লোকজন। খবর পেয়ে মিরপুর থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) ভূইঁয়া মাহবুবুর রহমান ঘটনাস্থলে যান।
বস্তিবাসীরা জানিয়েছেন, বস্তিবাসীর মধ্যে আতঙ্ক সৃষ্টি করার জন্য পরিকল্পিতভাবে সাজুকে গুলি করা হয়েছে। এ বিষয়ে বস্তির বাসিন্দা রাসেল জানান, সাজুসহ বস্তির চার যুবক সন্ধ্যায় আগুন পোহাচ্ছিল। এসময় তাদের ডেকে বঙ্গবন্ধু সৈনিক ক্লাবের নিয়ে যায় পুলিশ। বস্তির ওই ক্লাবের ভেতরে নিয়ে যাওয়ার কিছু সময় পরেই গুলির শব্দ শুনতে পান রাসেলসহ আশপাশের লোকজন। আহত সাজুর বরাত দিয়ে তার ফুফাতো ভাই জাহাঙ্গীর জানান, ক্লাবে নিয়ে সাজুসহ তার সঙ্গীদের মানিব্যাগ থেকে টাকা নিয়ে যায় পুলিশ। এসময় তাদের বাধা দেয় সাজু। এ নিয়ে পুলিশের সঙ্গে বাকবিতন্ডার এক পর্যায়ে হাবিলদার হারুণ তার ডান পায়ে গুলি করেন। এসময় পুলিশ সদস্যদের ঘেরাও করে রাখে বস্তির লোকজন। খবর পেয়ে মিরপুর থানার ওসি ভূইয়া মাহবুবুর রহমান ঘটনাস্থলে পৌঁছে তাদের উদ্ধার করেন। মিরপুর থানার কর্তব্যরত কর্মকর্তা উপ-পরিদর্শক (এসআই) মতিউর রহমান জানান, বস্তির নিরাপত্তার জন্য সেখানে পুলিশের একটি টিম থাকে। সন্ধ্যায় ওই টিমের দায়িত্বে ছিলের এসআই ইদ্রিস আলী। এ বিষয়ে পুলিশের মিরপুর জোনের উপ-কমিশনার (ডিসি) কাইয়ূমুজ্জামান বলেন, পুলিশ ইচ্ছে করে গুলি করে নাই। এটি মিস ফায়ার।

সংবাদটি শেয়ার করুন

এই সংবাদটি 12 বার পঠিত হয়েছে

এ সংক্রান্ত আরও সংবাদ