তাহিরপুর সীমান্তে অবৈধ পাথর কোয়ারীর দখল নিয়ে সংঘর্ষ : আহত ৫

প্রকাশিত: 12:49 PM, January 29, 2016

তাহিরপুর সীমান্তে অবৈধ পাথর কোয়ারীর দখল নিয়ে সংঘর্ষ : আহত ৫

তাহিরপুর (সুনামগঞ্জ) প্রতিনিধি:

সুনামগঞ্জ জেলার তাহিরপুর সীমান্তের যাদুকাটা নদীতে অবৈধ পাথর কোয়ারি দখল করাকে কেন্দ্র করে দুপক্ষের মধ্যে সংঘর্ষের ঘটনায় ৫ জন আহত হয়েছেন । আহতদের মধ্যে আশংকাজনক অবস্থায় কাজা মঈনুদ্দিন (৫৫) নামের একজনকে সিলেট এম এ জি ওসমানী মেডিকেল কলেজে ভর্তি করা হয়েছে । অন্যান্যদের স্থানীযভাবে চিকিৎসা দেয়া হয়েছে ।

সংঘর্ষে সূত্রপাত গতকাল বৃহস্পতিবার বেলা ৪ ঘটিকায় । পুলিশ ও স্থানীয় সূত্রে জানা যায়, উপজেলার বাদাঘাট ইউনিয়নের লাউড়গড় বিজিবি ক্যাম্পের সদস্যদের উৎকোচের বিনিময়ে ম্যানেজ করে এলাকার প্রভাবশালীরা বাংলাদেশ ভারত সীমান্তে ১২০৩ নং সীমান্ত পিলারের জিরো পয়েন্ট পার হয়ে ভারতে এবং জিরো পয়েন্ট সংলগ্ন স্থানে অবৈধভাবে  শত শত পাথর কোয়ারি তৈরী করেছে । স্থানীয় প্রশাসনকে ম্যানেজ করার কথা বলে ও সমিতির নামে  চলে অবাধ চাঁদাবাজি । কোয়ারি প্রতি ৩ হাজার টাকা ও পরিবহনে যুক্ত লরি থেকে ২ হাজার টাকা করে চাঁদা নেন স্থানীয় লাউড়গড় গ্রামের প্রভাবশালী ওসমান গণি । গতকাল বৃহস্পতিবার সেই অবৈধ পাথর কোয়ারি নিয়ে স্থানীয় লাউড়গড় গ্রামের খাজা মঈনুদ্দিন ও মানিগাঁও গ্রামের সোহেল মিযার মধ্যে কথা কাটাকাটি হয় । তারই জের ধরে দু পক্ষের মধ্যে সংঘর্ষ ঘটে । এসময় অবৈধ কোয়ারি মালিক খাজা মঈনুদ্দিনকে ছুরিকাঘাত করলে প্রথমে সুনামগঞ্জ সদর হাসপাতালে এবং অবস্থার অবনতি হলে সেখান থেকে সিলেট ওসমানী হাসপাতালে নিয়ে আসা হয় ।

এ ব্যাপারে লাউড়গড় বিজিবি ক্যাম্পের সরকারী নাম্বারে যোগাযোগ করা হলে সাংবাদিক পরিচয় পেয়ে নিজের নাম পরিচয় না দিয়ে এক বিজিবি সদস্য জানান- উর্ধ্বতন কর্মকর্তার সাথে যোগাযোগ না করে কোন তথ্য দিতে পারবেন না  । তাহিরপুর থানার ওসি মোঃ শহিদুল্লাহ বলেন – সংঘর্ষের ঘটনাটি জানতে পেরেছি । লিখিত অভিযোগ পেলে আইনগত ব্যবস্থা নেব ।।

সংবাদটি শেয়ার করুন

এই সংবাদটি 27 বার পঠিত হয়েছে

এ সংক্রান্ত আরও সংবাদ