‘ক্ষমতাবানদের দখলে দেশের ঐতিহ্যবাহী স্থাপনা’

প্রকাশিত: 8:56 AM, June 17, 2015

‘ক্ষমতাবানদের দখলে দেশের ঐতিহ্যবাহী স্থাপনা’

zoniবিনোদন ডেস্ক:সংস্কৃতিমন্ত্রী আসাদুজ্জামান নূর বলেছেন, ‘দেশের ঐতিহ্যবাহী অধিকাংশ স্থাপনা ক্ষমতাবানদের দখলে রয়েছে। যারা এসব স্থাপনা দখল করে আছেন, তারা এতই ক্ষমতাবান যে, চাইলেও স্থাপনাগুলো দখলমুক্ত করা সম্ভব হচ্ছে না। এ ছাড়া রয়েছে আইনি নানা জটিলতা। যার ফলে উদ্ধারে পদক্ষেপ নিতে গিয়েও থেমে থাকতে হয়।’
বুধবার রাজধানীর জাতীয় নাট্যশালা সেমিনার কক্ষে শিল্প সমালোচনা বিষয়ক কর্মশালার সমাপনী ও সনদপত্র বিতরণ অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথির বক্তব্যে তিনি এ মন্তব্য করেন।
আসাদুজ্জামান নূর আরো বলেন, ‘তারপরও আমরা বিভিন্ন বেশ কিছু স্থাপনা উদ্ধার করতে পেরেছি। রবীন্দ্রনাথ ঠাকুরের বাড়ি ও শচীন দেব বর্মনের বাড়িসহ বেশ কিছু ঐতিহাসিক স্থাপনা উদ্ধার করতে সক্ষম হয়েছি।’
রাজধানীর লালবাগের একটি অংশ এখনো দখলমুক্ত করা যায়নি এমন কথা উল্লেখ করে আসাদুজ্জামান নূর বলেন, ‘কোনো কোনো সময় আমাদের দখলদারদের কাছে হার মানতে হয়।
খোদ রাজধানীর লালবাগের একটি অংশ এখনো দখলমুক্ত করতে পারিনি। যে অংশটি একজন ব্যক্তি দখল করে আছেন, তিনি সেই ১৯১২ সালের একটি দলিল দেখিয়ে দখল করে আছেন। বিষয়টি বাস্তবতার সঙ্গে যায় না।’
তিনি বলেন, ‘বর্তমান সরকার দেশের পুরোনো ঐতিহ্য সংরক্ষণে বেশ আন্তরিক। তাই যখনই কোনো স্থাপনার বিষয় মিডিয়া আসে আমাদের মন্ত্রণালয় থেকে দ্রুত পদক্ষেপ নেওয়া হয়।’
কর্মশালায় অংশগ্রহণকারী শিক্ষার্থীদের উদ্দেশ্যে মন্ত্রী বলেন, ‘কোনো শিল্পকেই সজ্ঞায় বেঁধে রাখা যায় না। শিল্পসহ যে কোনো কিছুকে বাঁচিয়ে রাখার জন্য সবার আগে প্রয়োজন প্রেম। প্রেম গভীর না হলে কোনো কিছু সঠিকভাবে সম্পন্ন করা যায় না। আর এই বোধকে জাগিয়ে তুলতেই প্রশিক্ষণ জরুরি।’
১২ দিনব্যাপী আয়োজিত কর্মশালার বিষগুলো ছিল- নাটক, নৃত্য, আবৃত্তি, সংস্কৃতি, চারুকলা, নন্দনতত্ত্ব প্রভৃতি। বাংলাদেশ শিল্পকলা একাডেমী এই কর্মশালার আয়োজন করে।
অনুষ্ঠানটি সভাপতিত্ব করেন বাংলাদেশ শিল্পকলা একাডেমীর মহাপরিচালক লিয়াকত আলী লাকী এবং বিশেষ অতিথি হিসেবে উপস্থিত ছিলেন শিল্পসমালোচক মঈনউদ্দীন খালেদ।

এ ছাড়া শিল্প একাডেমীর ঊর্ধ্বতন কর্মকর্তাসহ কর্মশালায় অংশ নেওয়া শিক্ষার্থীরা এ সময় উপস্থিত ছিলেন।

সংবাদটি শেয়ার করুন

এই সংবাদটি 8 বার পঠিত হয়েছে

এ সংক্রান্ত আরও সংবাদ